বাংলা একাডেমি পুরস্কার ২০২১ পেলেন যাঁরা

সাহিত্যের বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদান রাখায় বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার-২০২১ ঘোষণা করা হয়েছে। বাংলা একাডেমি পুরস্কার পেলেন ১৫ যশস্বী : কবিতায় আসাদ মান্নান ও বিমল গুহ, কথাসাহিত্যে ঝর্না রহমান ও বিশ্বজিৎ চৌধুরী, প্রবন্ধ/গবেষণায় হোসেনউদ্দীন হোসেন, অনুবাদে আমিনুর রহমান ও রফিক-উম-মুনীর চৌধুরী, নাটকে সাধনা আহমেদ, শিশুসাহিত্যে রফিকুর রশীদ, মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক গবেষণায় পান্না কায়সার, বঙ্গবন্ধুবিষয়ক গবেষণায় হারুন-অর-রশিদ, বিজ্ঞান/কল্পবিজ্ঞান/পরিবেশবিজ্ঞানে শুভাগত চৌধুরী, আত্মজীবনী/স্মৃতিকথা/ভ্রমণকাহিনিতে সুফিয়া খাতুন ও হায়দার আকবর খান রনো এবং ফোকলোরে পুরস্কার পেয়েছেন আমিনুর রহমান সুলতান। উল্লেখ্য, ১৯৬০ সাল থেকে এ পুরস্কার দেওয়া হচ্ছে। প্রতিটি পুরস্কারের অর্থমূল্য ৩ লাখ টাকা।

ব্র্যাক ব্যাংক-সমকাল সাহিত্য পুরস্কার ২০১৯ ও ২০২০

বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত ছয় প্রবীণ ও নবীন লেখক ২০১৯ এবং ২০২০ সালের জন্য ব্র্যাক ব্যাংক-সমকাল সাহিত্য পুরস্কার পেলেন। এ বছর ছিল এ পুরস্কারের দশম আয়োজন। বাংলা সাহিত্যের প্রসার ও লেখকদের অনুপ্রাণিত করার লক্ষ্যে গত এক দশক যাবৎ লেখক ও সাহিত্যিকদের সম্মাননা দিয়ে আসছে ব্র্যাক ব্যাংক ও দৈনিক সমকাল। ২০১৯ সালের জন্য প্রফেসর সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী তাঁর দীক্ষাগুরুর তৎপরতা গ্রন্থের জন্য প্রবন্ধ, আত্মজীবনী, ভ্রমণ ও অনুবাদ শ্রেণিতে; হেলাল হাফিজ তাঁর বেদনাকে বলেছি কেঁদো না গ্রন্থের জন্য কবিতা ও কথাসাহিত্য শ্রেণিতে এবং মোজাফ্ফর হোসেন তাঁর পাঠে বিশ্লেষণে বিশ্বগল্প : ছোটগল্পের শিল্প ও রূপান্তর গ্রন্থের জন্য ‘হুমায়ূন আহমেদ তরুণ সাহিত্যিক পুরস্কার’ বিজয়ী হন।

২০২০ সালের জন্য আফসান চৌধুরী তাঁর ‘১৯৭১ গণনির্যাতন-গণহত্যা কাঠামো, বিবরণ ও পরিসর’ গ্রন্থের জন্য প্রবন্ধ, আত্মজীবনী, ভ্রমণ ও অনুবাদ শ্রেণিতে; মোহাম্মদ রফিক তাঁর পথিক পরান গ্রন্থের জন্য কবিতা ও কথাসাহিত্যে; রঞ্জনা বিশ্বাস তাঁর বাংলাদেশের লোকধর্ম গ্রন্থের জন্য ‘হুমায়ূন আহমেদ তরুণ সাহিত্যিক পুরস্কার’ বিজয়ী হন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের মাননীয় স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, এমপি। আরও উপস্থিত ছিলেন দৈনিক সমকালের প্রকাশক এ. কে. আজাদ, ব্র্যাক ব্যাংক-এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম আর. এফ. হোসেন ও দৈনিক সমকালের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মোজাম্মেল হোসেন।

পূর্বপশ্চিম সাহিত্য-সম্মাননা ও সাহিত্য-পুরস্কার ২০২১ পেলেন যাঁরা

বাংলা সাহিত্যে অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে ৯ কবি-সাহিত্যিককে পুরস্কার দিল সাহিত্য সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘পূর্বপশ্চিম’। সম্প্রতি দেশবরেণ্য কবি-সাহিত্যিকদের অংশগ্রহণে দুই দিনব্যাপী পূর্বপশ্চিম আন্তর্জাতিক সাহিত্য উৎসবের প্রথম দিনে এই পুরস্কার দেওয়া হয়। জ্যেষ্ঠ কবি-সাহিত্যিকদের সঙ্গে তরুণ, নবীনদের মিলনমেলায় পরিণত হয় উৎসব। যশোরের এ সাহিত্য উৎসবের উদ্বোধন করেন কথাসাহিত্যিক আনোয়ারা সৈয়দ হক। এতে বাংলা একাডেমির মহাপরিচালক, পূর্বপশ্চিমের উপদেষ্টা ও কবি মুহম্মদ নূরুল হুদার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন। বিশেষ অতিথি ছিলেন ঔপন্যাসিক হোসেনউদ্দীন হোসেন, কবি আসাদ মান্নান, পূর্বপশ্চিম সম্পাদক কবি আশরাফ জুয়েল ও কবি ইকবাল রাশেদীন এবং নির্বাহী সম্পাদক চঞ্চল কবীর। উদ্বোধনের পর ‘পূর্বপশ্চিম সাহিত্য সম্মাননা ২০২১’, ‘পূর্বপশ্চিম সাহিত্য পুরস্কার ২০২১’ ও ‘পূর্বপশ্চিম তরুণ সাহিত্য পুরস্কার ২০২১’ ঘোষণা এবং প্রদান করা হয়। এবার পূর্বপশ্চিম সাহিত্য সম্মাননা পেয়েছেন কথাসাহিত্যিক আনোয়ারা সৈয়দ হক, ঔপন্যাসিক হোসেনউদ্দীন হোসেন ও কবি দারা মাহমুদ। পূর্বপশ্চিম সাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন কথাসাহিত্যিক আহমাদ মোস্তফা কামাল, কবি ও প্রাবন্ধিক তপন বাগচী এবং কবি আমিনুল ইসলাম। পূর্বপশ্চিম তরুণ সাহিত্য পুরস্কার পেয়েছেন কবি সেঁজুতি বড়ুয়া, কথাসাহিত্যিক আব্দুল্লাহ আল ইমরান ও মাহবুব ময়ূখ রিশাদ।

অনুষ্ঠানে পূর্বপশ্চিম নির্বাহী সম্পাদক চঞ্চল কবীর বলেন, ‘যশোর সাহিত্যের সূতিকাগার। প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই সংগঠনটি বাংলাভাষার শিল্পসাহিত্য বিকাশে বিশেষ ভূমিকা পালন করছে এবং বাংলাদেশ ও ভারতে নিয়মিত পত্রিকা প্রকাশ এবং সাহিত্য উৎসবের আয়োজন করে আসছে।

গ্রন্থনা : রেজাউল হোসেন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

shares